naan | নরম তুলতুলে নান, বিয়ে বাড়ির মত করে বানিয়ে ফেলুন

নরম তুলতুলে নান(naan) বিয়ে বাড়িতে নান একটা খুব কমন জনপ্রিয় খাবার। এখন মিস্টির দোকানেও সকাল বেলায় গরম গরম নান ও চানা মশলা পাওয়া যায়। অনেকে নান খাসির মাংস দিয়ে জমিয়ে খেতে ভালবাসে। ঘরোয়া পদ্ধতিতে বাড়িতেই বিয়ে বাড়ির স্টাইলের নান বানিয়ে ফেলা যায়। নান বানানোর জন্য অনুষ্ঠান বাড়িতে ইস্ট ব্যবহার করে থাকে। এতে নান পাউরুটির মত সহজে ফুলে যায়। বাড়িতে ইস্ট ব্যবহার না করে বেকিং পাউডার ও খাবার সোডা দিয়ে বিকল্প পদ্ধতিতে একই রকম নান(naan) বানানো সম্ভব।   

উপকরণঃ

  •  ময়দা ৫০০ গ্রাম,
  •  টক দই ১০০ গ্রাম,
  •  বেকিং পাওডার ২ চামচ,
  •  খাবার সোডা ১/২ চামচ,
  •  লবণ স্বাদমতো,
  •  চিনি হাফ কাপ,
  • সাদা তেল ২ কাপ,

নান(naan) প্রস্তুতিঃ

ময়দা- নান বানানোর প্রধান উপকরণ হলো ময়দা তবে অনেকে ময়দার সাথে আটা মিশিয়ে নান বানিয়ে থাকে ময়দা যত ভালো দইয়ের সাথে মাখানো হবে আর যত বেশি ঠাসা হবে তত নানের টেস্ট বাড়বে। ময়দা মাখার সময় ময়দার সাথে টক দই বেকিং পাউডার খাবার সোডা  চিনি ও সামান্য লবণ দিয়ে মাখতে হবে। ময়ান হিসেবে ময়দার সাথে সাদা তেল ব্যবহার করা যেতে পারে।

সাদা তেল- সাদা তেল হিসেবে সূর্যমুখী তেল  সয়াবিন তেল রাইস ব্যান্ড অয়েল ইত্যাদি ব্যবহার করা যেতে পারে তবে  বাদাম তেল না ব্যবহার করাই ভালো কারন তাতে ক্লোরেস্টল বেড়ে যেতে পারে।

বেকিং পাউডার ও খাবার সোডা- নরম তুলতুলে ও ফুলকো ফুলকো নান বানানোর জন্য বেকিং পাউডার ও খাবার সোডা দুটাই খুব দরকার। তবে বেকিং পাউডার যদি এক চামচ দেয়া হয় তাহলে তার চার ভাগের এক ভাগ দিতে হবে খাবার সোডা। 

চিনি-  ভালো সুস্বাদু নান বানাতে গেলে চিনি একটু দিতেই হয়। কারণ টক দই এর মধ্যে একটা টক ভাব থাকে আর তার জন্য চিনি না দিলে পুরো নামটাই হালকা টক স্বাদের হয়ে যায় তাই টক দইয়ের অনুপাতে কিছুটা চিনি ময়দা মাখার সময় মেশাতে হয়।

  Paneer Rezala Recipe | পনির রেজালা সম্পূর্ণ নিরামিষ ভাবে বানিয়ে ফেলুন

নান(naan) প্রণালীঃ

  • Step_1: প্রথমে একটি বাটিতে ১০০ গ্রাম টকদই রেখে তার উপর ২ চামচ বেকিং পাউডার, ১/২ চামচ খাবার সোডা, সামান্য লবণ ও প্রায় হাফ কাপ চিনি দিয়ে খুব ভালো করে ফেটিয়ে রেখে দিন।
  • Step_2: তারপর একটি থালাতে ৫০০ গ্রাম ময়দা নিয়ে তাতে সামান্য ময়ান (সাদা তেল ২ চামচ) দিয়ে মেখে নিন। এবার ময়দার মধ্যে ফেটানো টক দইটা দিয়ে একটু গরম জলের সাহায্যে ভালো করে মেখে নিন। ময়দাটা ভাল করে মাখা হয়ে গেলে, উপরে একটু সাদা তেল মাখিয়ে রাখুন। এরপর মাখা ময়দাটা প্রায় দু’ঘণ্টা ঢাকা দিয়ে একটু গরম জায়গায় রেখে দিন।
  • Step_3: দু’ঘণ্টা পর দেখবেন ময়দাটা একটু ফুলে গেছে। এবার ওই ময়দাটা থেকে বড় বড় লেচি কেটে নিন। লেচি গুলো বেলার সময় ছোট ও মোটা করে বেলবেন। বেশি বড় করে লেচি বেলবেন না।
  • Step_4: এবার কড়াতে দু’কাপ তেল গরম করে লেচি গুলি লুচি ভাজার মত করে ভেজে নিন। এবার একটু লাল হলে কড়া থেকে তুলে নিন। এইভাবে খুব সুন্দর নরম তুলতুলে নান তৈরি হয়ে যাবে। নান বানানো হয়ে যাওয়ার পর করা থেকে তুলে নিয়ে একটা ঝুড়িতে খবরের কাগজ পেতে তার উপরে নানা গুলোকে রেখে ঝুড়ির উপরে আবার কাগজ চাপা দিতে হবে। তাহলে ণনের অতিরিক্ত তেল কাগজের শোষণ করে নেবে আর ঢাকা দেয়ার কারণে নান গরম থাকবে। 

পরিবেশনঃ

জলখাবারে ঘুগনির সাথে বা মটর পনিরের সাথে নান(naan) দিয়ে খেতে ভাল লাগে। নান(naan) যেহেতু একটু মোটা হয় আর নানে ময়দার পরিমাণ একটু বেশি থাকে তাই বেশি খাওয়া যায় না। গরম গরম নান মটন কষা বা বাটার চিকেন এর সাথে খেতে খুব ভালো লাগে।

সোয়া ঘুগনি | সোয়াবিন ও মটর দিয়ে বাড়িতেই বানিয়ে ফেলুন

রকমারি পারোটা সহজ উপায়ে তৈরি করে নিন । চট জলদি জলখাবার

টিপসঃ

  • ময়দা দই দিয়ে মাখা অবস্থায় কখনই ফ্রিজে রাখবেন না। সব সময় একটু গরম জায়গায় ঢাকা দিয়ে রাখবেন।
  • ময়দা ঢাকা দেওয়া অবস্থায় ৫ – ৬ ঘন্টা রেখে দিয়ে আরও নরম হয় নান। 
  • নান কখনই nandrolone decanoate buy in usa খুব গরম তেলে ডিপ ফ্রাই করবেন না। 
  Chilli Chicken Recipe | রেস্টুরেন্টের মত চিলি চিকেন সহজেই বানিয়ে ফেলুন

 FAQ:

নান আর  রাধাবল্লভীর মধ্যে তফাৎ কি?

নান দইয়ের সাথে ময়দা মেখে বানানো হয়। এক্ষেত্রে কোনো পুর ব্যবহার করা হয় না।  কিন্তু রাধাবল্লভী সাধারণ লুচির মতন ময়দা মেখে বানানো হয়। এতে কোন দই ব্যবহার করা হয় না। কিন্তু রাধাবল্লভীর ভেতর ডালের পুর ব্যবহার করা হয়। তাই রাধাবল্লভীর স্বাদ সম্পূর্ণ ভিন্ন হয়। 

Leave a Comment